জেলা প্রতিনিধিঃ  ডাক্তারি পাস না করেও নামের আগে ডাক্তার লিখে নিয়মিত রোগীদের ব্যবস্থাপত্র দেন মানিকগঞ্জের সিংগাইর উপজেলার সুকুমার বৈদ্য (৪৫) নামের এক ভুয়া ডাক্তার। আজ বুধবার দুপুরে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর অভিযান চালিয়ে ওই ভুয়া ডাক্তারকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা করেছে। সুকুমার বৈদ্য ওই গ্রামের স্বর্গীয় সুনীল কুমার বৈদ্যর ছেলে।

ভোক্ত অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের জেলা সহকারী পরিচালক আসাদুজ্জামান রুমেল জানান, সুকুমার বৈদ্য উপজেলার ধল্লা বাজারে ‘বৈদ্য মেডিকেল হল’ নামে একটি ফার্মেসি খুলে দীর্ঘদিন ধরে রোগীদের সঙ্গে প্রতারণা করে আসছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তার ফার্মেসিতে অভিযান চালিয়ে তাকে জরিমানা করা হয়েছে। সেইসঙ্গে ভবিষ্যতে সে এমন কাজ করবে না বলে মুচলেকা দিয়েছে।

  বাউফল উপজেলাকে রেড জোন ঘোষণা!

তিনি জানান, এসএসপি পাস সুকুমার বৈদ্য ধামরাই থেকে পল্লী চিকিৎসার ওপর একটি কোর্স করে এমবিবিএস ডাক্তারদের মতো চিকিৎসার পাশাপাশি রোগীদের ব্যবস্থাপত্র দিতেন। বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিল আইন অনুযায়ী, কোন ব্যক্তি এমবিবিএস/ বিডিএস ব্যতীত নামের আগে ডাক্তার লিখতে পারবে না।