আইপিএলে এসে প্রথম বিদেশি ক্রিকেটারদের মধ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন চেন্নাই সুপার কিংসের ব্যাটিং কোচ মাইক হাসি। দিল্লিতে থাকা অবস্থায় তার করোনা ধরা পড়লেও এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে তাকে চেন্নাইতে নেওয়া হয়েছে। মূলত চেন্নাই দলের সকল ক্রিকেটার, কোচিং স্টাফরা বায়ো-বাবল ভেঙে বাড়ি ফিরে যাচ্ছেন, যার কারণে হাসিকে চেন্নাইতে নেওয়া হচ্ছে। সাবেক এই অস্ট্রেলিয়ানের সঙ্গে চেন্নাইর ছিলেন বোলিং কোচ লক্ষ্মীপতি বালাজি।

আজ বৃহস্পতিবার নিউজ এজেন্সি এএনআইয়কে চেন্নাই টিমের সিনিয়র এক কর্মকর্তা এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, ‘পরিস্থিতিটির আরও ভালো নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে হাসি এবং বোলিং কোচ বালাজিকে চেন্নাই নিয়ে আসা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ‘চেন্নাইয়ে তাদের নিয়ে আসা হলে আমাদের আরও ভালো যোগাযোগ রাখা যাবে। এ কারণে, এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে হাসি এবং বালাজি উভয়কেই চেন্নাইয়ে আনার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। ভাগ্যক্রমে, তাদের করোনার কোনো লক্ষণ নেই এবং উভয়ই ভাল। তবে হ্যাঁ, ভারত ছাড়ার আগে হাসিকে কোভিড নেগেটিভের রিপোর্টের জন্য অপেক্ষা করতে হবে। আমরা তাদের জন্য একটি চার্টার্ড বিমানের ব্যবস্থা করছি।’

  চলে গেলেন নব্বই দশকের কিংবদন্তী ক্রিকেটার রামচাঁদ গোয়াল

বাকি বিদেশি খেলোয়াড়দের সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘চার্টার্ড ফ্লাইটের ব্যবস্থা করা হয়েছে এবং তাদের জন্য অপেক্ষা করার প্রশ্নই আসে না। খেলোয়াড়দের সুরক্ষা অগ্রাধিকার এবং আমরা তাদের সবার জন্য চার্টার্ড বিমান পরিকল্পনা করেছি। আমরা যত দ্রুত সম্ভব তাদের নিরাপদ বাড়িতে আনতে চাই।’