Shadow

কুড়িগ্রামে নদ-নদীর পানি বৃদ্ধিতে চরম দুর্ভোগে চরাঞ্চলের মানুষ!

শেয়ার করুনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আনোয়ার হোসেন আরিফ, ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম) সংবাদদাতা;  টানা ৩ দিনের বৃষ্টি ও উজানের ঢলে কুড়িগ্রামে ব্রম্মপুত্র, ধরলা, তিস্তা, দুধকুমরসহ ১৬টি নদ-নদীর পানি আবারো বৃদ্ধি পেয়েছে।

  • গত ৩৬ ঘন্টায় সেতু পয়েন্টে ধরলার পানি ৩৯ সেন্টিমিটার, নুনখাওয়া পয়েন্টে ব্রম্মপুত্রের পানি ১৬ সেন্টিমিটার এবং কাউনিয়া পয়েন্টে তিস্তার পানি ৮ সেন্টিমিটার ও পাটেরশ্বরী ব্রীজের নিচ পয়েন্টে প্রচন্ড পানি বৃদ্ধি পেয়েছে। যার ফলে চর বলদিয়া, চর ধাওরার কুটি,যাত্রাপুর, নুনখাওয়া, নারায়ণপুর ও ভূরুঙ্গামারী উপজেলাসহ জেলার বেশ কয়েকটি চরে পানি ঢুকে তলিয়ে গেছে নিম্নাঞ্চলের উঠতি ফসল বাদাম, তিল, কাউন, পাটসহ বিভিন্ন ধরনের সবজি ও ফসল ক্ষেত।

আজ শনিবার সকালে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়। পানি বৃদ্ধির সাথে সাথে দেখা দিয়েছে চর ভূরুঙ্গামারীর ত্রিমহনী দুধকুমর নদীর বুকে ভরা পানির উপরে পারাপারের জন‍্য এই কলাগাছের ভুড়া বানানোর চিত্র টি ।

  • এব্যাপারে কুড়িগ্রাম পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো: আরিফুল ইসলাম বলেন, কুড়িগ্রামে নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। চলতি মাসের শেষ সপ্তাহ এবং জুলাইয়ের প্রথম সপ্তাহে ব্রহ্মপুত্র নদের পানি বিপদসীমা অতিক্রম করতে পারে।
  ঝিনাইদহে কর্মজীবী শিশুদের নিরাপত্তা বিষয়ক অবহিতকরণ সভা

তখন ব্রহ্মপুত্রের অববাহিকার চিলমারী, উলিপুর, রৌমারী, রাজিবপুর,ভূরুঙ্গামারী,নাগেশ্বরী উপজেলার কিছু অংশ বন্যা কবলিত হয়ে পড়তে পারে।

নির্বাহী প্রকৌশলী এটাও জানায় কিছু কিছু ভাঙ্গন কবলিত এলাকায় আমরা জরুরী ভিত্তিতে কাজ অব্যাহত রেখেছি।

আমাদের বাণী ডট কম/২৭  জুন ২০২০/পিপিএম 

শেয়ার করুনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •