সুমাইয়া বেগম

নিজস্ব সংবাদদাতা, ঢাকা;  পরীক্ষার ফল দিয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের খুন হয়ে যাওয়া ছাত্রী সুমাইয়া বেগমের। তিনি সিজিপিএ ৩.৪৪ পেয়ে প্রথম শ্রেণিতে উত্তীর্ণ হয়েছেন। আজই ফলাফল দিয়েছে তাঁর। এ তথ্য নিশ্চিত করেন ঢাবির ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের চেয়ারম্যান শামসুল আলম।

  • গত সোমবার (২২ জুন) রাতে সকালে নাটোর সদর হাসপাতালে সুমাইয়াকে মৃত অবস্থায় ফেলে তাঁর শ্বশুর বাড়ির লোকজন পালিয়ে যান। এ ঘটনায় ওই দিন রাতেই সুমাইয়ার মা নুজহাত সুলতানা নির্যাতনে হত্যার অভিযোগ এনে নাটোর সদর থানায় চারজনকে অভিযুক্ত করে মামলা করেন।

ঢাবির ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষের এ শিক্ষার্থী মাস্টার্স পরীক্ষা শেষে ফলাফলের অপেক্ষায় ছিলেন। তিনি বিসিএস ও সরকারি চাকরির জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন।

  • ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের চেয়ারম্যান শামসুল আলম বলেন, সুমাইয়ার রেজাল্ট দিয়েছে। সে সিজিপিএ ৩.৪৪ পেয়ে প্রথম শ্রেণিতে উত্তীর্ণ হয়েছে। এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় আমরা মর্মাহত। সে খুবই মেধাবী ছাত্রী ছিল। আমরা এ হত্যার বিচার চাই। এ ঘটনার প্রতিবাদ কর্মসূচি বা মানববন্ধনের আয়োজন করা যায়নি করোনা পরিস্থিতির কারণে।
  নতুন এমপিওভুক্ত শিক্ষকরা রেজিস্ট্রেশন করবেন যেভাবে

সুমাইয়াকে হত্যার অভিযোগে তাঁর স্বামী মোস্তাক হোসাইন ও শ্বশুর জাকির হোসেনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। আজ বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) দুপুরে এক ব্রিফিংয়ে পুলিশ এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

  • বুধবার (২৪ জুন) সন্ধ্যার পর রাজশাহী পিবিআইয়ের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল কালাম আজাদের নেতৃত্বে পিবিআইয়ের সদস্যরা তদন্তে নামেন। এ সময় পিবিআইয়ের সদস্য শহরের বলারীপাড়া নিহত সুমাইয়া খাতুনের বাড়িতে যান। এ সময় তাঁরা সুমাইয়ার মা ও ভাইয়ের সাথে কথা বলেন।

প্রসংগত, ঢাবি ছাত্রী সুমাইয়া নাটোর সদরের হরিশপুর বাগানবাড়ি এলাকার মোস্তাক হোসাইনের স্ত্রী। সোমবার (২২ জুন) সকালে তাঁকে হত্যার ঘটনা ঘটে।

আমাদের বাণী ডট কম/২৫ জুন ২০২০/পিপিএম