করোনাভাইরাস আক্রান্ত যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে ওলটার রিড ন্যাশনাল মিলিটারি মেডিকেল সেন্টারে ভর্তির পর তার সমর্থকরা হাসপাতালের সামনে জড়ো হয়ে তার সুস্থতা কামনা করছেন। ট্রাম্পের শুভ কামনায় শনিবার থেকেই সেখানে ভিড় জমান সমর্থকরা। তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাতে এবং তাদের চমক দিতে রোববার হঠাৎ করে কিছুক্ষণের জন্য হাসপাতাল ছেড়ে গাড়িবহর নিয়ে তাদের দেখা দিয়েছেন ট্রাম্প।

সমর্থকদের চমকে দিতে সফর করবেন টুইটারে এমন ঘোষণা দেয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই গাড়ির ভেতর মাস্ক পরে হাসপাতালের বাইরে তার গাড়িবহরকে চক্কর দিতে দেখা যায়। মাস্ক পরে সমর্থকদের উদ্দেশে হাতও নাড়তে দেখা যায় তাকে। খবর বিবিসি, সিএনএন ও গার্ডিয়ানের

সিএনএনের খবরে বলা হয়েছে, ট্রাম্প গাড়ির ভেতর থেকে যেভাবে সমর্থকদের উদ্দেশে হাত নাড়ছিলেন তাতে বোঝা যায় তিনি শারীরিকভাবে এখনও সুস্থ। অসুস্থ হলে হাত নাড়ার মতো শক্তি তার থাকতো না। ফলে তার শারীরিক অসুস্থতা নিয়ে আবার নিজেই তিনি বিভ্রান্তি তৈরি করলেন। করোনাকে যে তিনি এখনও তেমন গুরত্ব দেন না সেটি আরেকবার প্রমাণ হল। 

  ঘুষ নেয়া বন্ধে পকেটবিহীন পুলিশের পোষাক!

এর আগে হাসপাতাল থেকে এক ভিডিওবার্তায় ট্রাম্প বলেন, ‘আমার শারীরিক অবস্থা এখন বেশ ভালো। তবে সামনের দিনগুলোতে আসল পরীক্ষা। আগামী দুই দিনে কী হয়, সেটিই এখন দেখার বিষয়।’

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের শারীরিক অবস্থা নিয়ে ভিন্ন ভিন্ন বক্তব্য পাওয়া যাচ্ছে। তিনি আসলেই কেমন আছেন, তা নিয়ে বিভ্রান্তি এখনও কাটেনি। তার শারীরিক অবস্থা নিয়ে বিভ্রান্তি তৈরি হওয়ায় সোমবার তিনি হাসপাতাল ছেড়ে যেতে পারেন।

করোনায় আক্রান্ত হওয়ার এক দিন পর গত শুক্রবার হাসপাতালে ভর্তি হন ট্রাম্প। হাসপাতালে থেকেই প্রেসিডেন্সি কার্যক্রম চালাচ্ছেন তিনি। এর আগে গত বৃহস্পতিবার এক টুইটে ট্রাম্প নিজেই তার এবং ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া ট্রাম্পের করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার তথ্য জানান।

আমাদের বাণী ডট কম/৪ অক্টোবর ২০২০/পিপিএম