Capture

চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ও যমুনা টেলিভিশনের চাঁদপুর প্রতিনিধি শাহ মোহাম্মদ মাকসুদুল আলম মারা গেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। সোমবার ( ২৮ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯টার দিকে শহরের তালতলার নিজ বাসায় তিনি শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন।

মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫২ বছর। চার ভাই ও পাঁচ বোনের মধ্যে তিনি ছিলেন ভাইদের মধ্যে সবার ছোট। তার বড় ভাই এস এম এম আলম জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির সিনিয়র প্রেসিডিয়াম সদস্য। মৃত্যুকালে সাংবাদিক মাকসুদুল আলম স্ত্রীসহ বহু আত্মীয়-স্বজন, সহকর্মী ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তিনি দীর্ঘদিন ধরে ডায়াবেটিস, হৃদরোগসহ বিভিন্ন জটিল রোগে ভুগছিলেন।

সাংবাদিক শাহ মোহাম্মদ মাকসুদুল আলম উপস্থাপক ও আবৃত্তিকার হিসেবেও জনপ্রিয় ছিলেন। তিনি একুশে টেলিভিশনের চাঁদপুর প্রতিনিধি হিসেবেও দীর্ঘদিন কমর্রত ছিলেন এবং দৈনিক যুগান্তর, সাপ্তাহিক রূপসী চাঁদপুর, দৈনিক পত্রিকা, দৈনিক চাঁদপুর কণ্ঠ, দৈনিক চাঁদপুর প্রবাহ সহ স্থানীয় ও জাতীয় আরও বহু পত্রিকায় কাজ করেছেন। অধুনালুপ্ত দৈনিক আমার চাঁদপুর পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক ছিলেন তিনি।

  এমপিওভুক্ত ৮৭ প্রতিষ্ঠানের দেড় হাজার শিক্ষক-কর্মচারীর বেতন-ভাতা বন্ধ

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, সোমবার বাদ আসর তালতলায় মরহুম আব্দুল করিম পাটোয়ারীর বাড়ির সামনের মসজিদে সাংবাদিক শাহ মোহাম্মদ মাকসুদুল আলমের জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। এরপর তালতলায় পারিবারিক গোরস্থানে তাকে দাফন করা হবে।

এদিকে চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি শাহ মোহাম্মদ মাকসুদুল আলমের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন প্রেসক্লাবের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি গিয়াসউদ্দিন মিলন ও সাধারণ সম্পাদক এ এইচ এম আহসান উল্লাহসহ সিনিয়র নেতৃবৃন্দ।

তারা মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করে শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা প্রকাশ করেছেন।

এছাড়াও চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের সিনিয়র সদস্য শাহ মোহাম্মদ মাকসুদুল আলমের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের সভাপতি আল-ইমরান শোভন ও সাধারণ সম্পাদক রিয়াদ ফেরদৌস।

আমাদের বাণী ডট কম/২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০/পিপিএম