ঈশ্বরগঞ্জ , ময়মনসিংহ

ময়মনসিংহ সংবাদদাতা; জেলার  ঈশ্বরগঞ্জে সুদের টাকার চাপে স্বামী-স্ত্রী মিলে বিষ পান করেছেন। এতে স্বামীর মৃত্যু হয়। স্ত্রী বর্তমানে গুরুতর অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি আছেন। আজ মঙ্গলবার (২৬ মে ২০২০)  বেলা ১১টায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, উপজেলার সরিষা ইউনিয়নের মহেশপুর গ্রামের আব্দুস সালামের ছেলে মহেশপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের অফিস সহকারি হারুন মিয়া (২৮) ও তার স্ত্রী জেসমিন আক্তার (২৩) মঙ্গলবার বেলা ১১টায় নিজ ঘরে বিষ পান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। বিষয়টি পরিবারের অন্য সদস্যরা টের পেয়ে ঘরের দরজা ভেঙে দুইজনকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক হারুন মিয়াকে মৃত ঘোষণা করেন। স্ত্রী জেসমিনকে আশঙ্কা জনক অবস্থায় উন্নত চিকিৎসার জন্যে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। তাদের ঘরে আড়াই বছর বয়সী একটি মেয়ে সন্তান রয়েছে।

  • হারুনের মা খোরশেদা বেগম জানান, বিভিন্ন জনের কাছ থেকে প্রায় ২০লাখ টাকা সুদে ঋণ করে হারুন। এই টাকার জন্যে প্রতিদিনই পাওনাদাররা বাড়িতে এসে ছেলেকে শাসিয়ে যেত। টাকা পরিশোধের জন্যে হারুনের বাবা জমিবিক্রি করার চেষ্টা করলেও করোনার কারণে তা বিক্রি করতে পারেনি। কিন্তু সুদখোররা তা না মেনে চাপ অব্যাহত রেখেছিল। সুদখোরদের এমন চাপে আমার ছেলে মানসিকভাবে প্রচণ্ড চাপের মধ্যে থাকতো।
  চাল আত্মসাতের ঘটনায় তদন্ত কমিটি: চেয়ারম্যানকে বাঁচাতে ইঞ্জিনিয়ারিং কৌশল

ঈশ্বরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোখলেছুর রহমান জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্ত করা হয়েছে। হাসপাতালে ভর্তি জেসমিনকে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে মামলার প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে।

আমাদের বাণী ডট কম/২৬ মে ২০২০/সিসিপি