বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেল অফিসার নিয়োগ নিয়ে ফের অচলায়তন শুরু হয়েছে।  নিয়োগ পরীক্ষা নিয়ে বরাবরই পক্ষপাতমূলক আচরণের অভিযোগ উঠেছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন চিকিৎসক অভিযোগ করেন বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন নিয়োগ পরীক্ষা নিয়ে বরাবরই পক্ষপাতমূলক আচরণ করছে। বিশেষ করে কোন কোন সিনিয়র চিকিৎসক ও তার অনুসারীদের সুযোগ দিতে ব্যস্ত হয়ে উঠেছেন। তাদেরকে প্রশ্ন আগেই বলে দেয়ার মত অভিযোগও ওঠে এবার।

বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রোভিসি (শিক্ষা) অধ্যাপক ডাঃ সাহানা পক্ষপাতমূলক আচরণ করছেন এবং প্রশ্ন আগেই বলে দিয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। একই অভিযোগে এর আগেও এধরনের অভিযোগে প্রোভিসি (শিক্ষা) কে সারারাত অবরুদ্ধ করে রাখা হয় এবং নিয়োগ পরীক্ষা স্থগিত করা হয়।

  শ্রীপুর সরকারি ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ

এসকল অভিযোগের কারণে আবার বিএসএমএমইউ এর ক্যাম্পাসে উত্তেজনা বিরাজ করছে।

সাধারণ চাকরি প্রার্থী চিকিৎসকেরাও হতাশা প্রকাশ করে বলেন, এধরনের প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষায় প্রশ্ন পূর্বেই বলে দিলে পরীক্ষা না নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সরাসরি কয়েকজনকে কয়েকজন কে নিয়োগ দিলেই তো পারে।

দেশের প্রথম সরকারি মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়োগে যদি এরকম পরিস্থিতি হয় তাহলে আর সব মেডিকেল কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের কি পরিস্থিতি হতে পারে প্রশ্ন সাধারণ মানুষের মনেও।

এ বিষয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) উপাচার্য  অধ্যাপক ডা. কনক কান্তি বড়ুয়াকে ফোনে কয়েকবার চেষ্টা করেও যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি।

আমাদের বাণী-আ.আ.হ/মৃধা

[wpdevart_like_box profile_id=”https://www.facebook.com/amaderbanicom-284130558933259/” connections=”show” width=”300″ height=”550″ header=”small” cover_photo=”show” locale=”en_US”]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *