Shadow

কুষ্টিয়ায় আজও ৭ জনের করোনা শনাক্ত, মোট ১১১

শেয়ার করুনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

হুমায়ুন কবির, কুষ্টিয়া জেলা সংবাদদাতা; জেলায় নতুন করে আরও ৭  জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় করোনা শনাক্তের সংখ্যা (বহিরাগত বাদে) দাঁড়ালো ১১১জনে। এর মধ্যে মোট সুস্থ হয়ে ছাড়পত্র পেয়েছেন ২৯ জন। একই সাথে বর্তমানে হোম আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন ৭৯ জন এবং হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ৩ জন।

  • আজ  শনিবার (০৬  জুন ২০২০) সন্ধ্যায় কুষ্টিয়ার জেলা সিভিল সার্জন ডাক্তার এস এম আনোয়ারুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেন।’

কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের পিসিআর ল্যাবের প্রাপ্ত তথ্য মতে, আজ কুষ্টিয়ায় ১১১ টি নমুনার মধ্যে কুষ্টিয়ার ৬৮টি পরীক্ষার রিপোর্ট পাওয়া গেছে যার মধ্যে কুষ্টিয়ার ৭  জনের করোনা পজিটিভ এসেছে। এর বাইরে মেহেরপুরের ২টি, চুয়াডাঙ্গার ১টি, মাগুরা ১ টি ও নড়াইলের ১ টি নমুনা পজেটিভ বলে সনাক্ত হয়। বাকি ফলগুলো নেগেটিভ আসে।

  • সিভিল সার্জন ডাক্তার এস এম আনোয়ারুল ইসলাম, নতুন আক্রান্তের মধ্যে কুমারখালী উপজেলার পাইকপাড়াতে দুই জন, কুষ্টিয়া জেলার সদর উপজেলায় ১ জন। ভেড়ামারা উপজেলাতে ৪ জন, এদের বাড়ী বামনপাড়া, বাহাদুরপুর, আরকানদিতে । আজকে সনাক্তদের মধ্যে ২ জনের বয়স ২১- ৩০ বছর ,৩ জনের বয়স ৩১-৪০ বছরের মধ্যে, ১ জনের বয়স ৪০-৫০ বছরের মধ্যে এবং ১ জনের বয়স ৫১-৬০ বছরের মধ্যে। আজকে নতুন সনাক্ত সবাই পুরুষ।

নতুন ৭  জন সহ শনাক্তকৃত ১১১ জনের মধ্যে দৌলতপুর উপজেলায় ২৩  জন, ভেড়ামারা উপজেলায় ১৯  জন, মিরপুর উপজেলায় ১২ জন, সদর উপজেলায় ৩২ জন, কুমারখালী উপজেলায় ১৮ জন ও খোকসা উপজেলায় ৭ জন। এদের মধ্যে পুরুষ রোগী ৮৫ জন ও নারী ২৬ জন।

মোট ১১১  জনের মধ্যে সুস্থ্য হয়ে ছাড়পত্র পেয়েছেন ২৯ জন এবং উপজেলা ভিত্তিক সুস্থ ২৯ জন (দৌলতপুর ১১, ভেড়ামারায় ২, মিরপুরে ৫ জন , সদর উপজেলায় ৪ জন, কুমারখালীয় ৬ জন ও খোকসায় ১ জন) বহিরাগত সুস্থ ২ জন।

এদিকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এর করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত হেলথ বুলেটিনের সর্বশেষ (০৬ জুন ২০২০) তথ্য অনুযায়ী,গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৩৫ জনের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে মহামারি করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯)। ফলে ভাইরাসটিতে মোট ৮৪৬  জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে করোনায় আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন দুই হাজার ৬৩৫ জন। এতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৬৩  হাজার ০২৫ জনে। নতুন করে সুস্থ্য হয়েছে  ৫২১ জন এবং মোট সুস্থ হয়েছেন ১৩৩২৫ জন।  ৫০টি ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ১২ হাজার ৯০৯টি এবং পরীক্ষা করা হয়েছে ১২ হাজার ৪৮৬টি। আক্রান্তের হার ২১.১০ শতাংশ।  ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৫২১ জন এবং এ পর্যন্ত সুস্থ হয়ে হাসপাতাল ছেড়েছেন ১৩ হাজার ৩২৫ জন। সুস্থতার হার ২১.১৪ শতাংশ এবং মৃত্যুর হার ১.৩৪ শতাংশ। মারা যাওয়া ব্যক্তিদের সম্পর্কে জানানো হয়, পুরুষ ২৮ জন ও নারী সাতজন। বয়স বিশ্লেষণে জানা যায়, ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে দুইজন, ২১-৩০ তিজন, ৩১-৪০ দুইজন, ৪১-৫০ তিনজন, ৫১-৬০ ১০ জন, ৬১-৭০ পাঁচজন, ৭১-৮০ ৯ জন এবং ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে একজন।

  শিবচরে সুনসান নীরবতা!

আমাদের বাণী ডট কম/০৬ জুন ২০২০/সিসিপি


শেয়ার করুনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •