Shadow

ঘরে বসেই করোনামুক্ত হলেন ঢাকা কলেজের ২ শিক্ষার্থী

শেয়ার করুনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নিজস্ব সংবাদদাতা, ঢাকা; নিজ বাড়িতে বসেই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ঢাকা কলেজের দুই শিক্ষার্থী এখন করোনামুক্ত। শনিবার (২৩ মে) নিজেদের করোনাভাইরাস নেগেটিভের কথা গণমাধ্যমকে জানিয়েছে ওই দুই শিক্ষার্থী।

গত ৩ মে সমাজবিজ্ঞান বিভাগের এক শিক্ষার্থীর শরীরে হালকা জ্বর ও গলাব্যথা নিয়ে করোনা পরীক্ষা করলে ফলাফল পজেটিভ আসে। এর কয়েকদিন পরেই অর্থনীতি বিভাগের আরেক শিক্ষার্থী করোনায় আক্রান্ত হয়।

সমাজবিজ্ঞান বিভাগের ওই শিক্ষার্থী জানায়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের করোনা ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় ফলাফল নেগেটিভ এসেছে। আর মুগদা জেনারেল হাসপাতালের করোনা ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় ফলাফল নেগেটিভ এসেছে অর্থনীতি বিভাগের ওই শিক্ষার্থীর।

করোনা থেকে মুক্তি পাওয়া ওই দুই শিক্ষার্থী জানান, করোনা পজেটিভ আসার পরই নিজ বাসায় আইসোলেশনে চলে যান তারা। এরপর ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী আলাদা কক্ষে বসবাস শুরু করেন। এছাড়া ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী প্যারাসিটামল ট্যাবলেট খাওয়া, স্যাভলন দিয়ে নিজেদের কক্ষ দিনে দুই থেকে তিন বার পরিষ্কার রাখা, নিজেদের কাপড় চোপড় পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখা, গরম পানিতে স্যাভলন মিশিয়ে গোসল করা, হালকা গরম পানিতে লবন মিশিয়ে গড়গড়া করা, গরম পানির সঙ্গে লেবুর রস মিশিয়ে খাওয়া, হালকা গরম পানি খাওয়া। এছাড়া ভিটামিন সি যুক্ত খাবার খাওয়া, ঘরে থেকেই নিয়মিত ব্যায়াম করাসহ অন্যান্য সকল স্বাস্থ্য বিধি মেনে ঘরে অবস্থান করায় করোনা থেকে মুক্তি মিলেছে।

বর্তমানে তারা নিজ বাসায় অবস্থান করছেন এবং সম্পূর্ণ সুস্থ রয়েছেন বলেও জানান।

কেউ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলে ভয় না পেয়ে মনে সাহস রেখে স্বাস্থ্য বিধি মেনে নিজ বাড়িতে অবস্থান করার কথাও বলেন ওই দুই শিক্ষার্থী। এছাড়া চলমান করোনা পরিস্থিতিতে সবাইকে সর্বোচ্চ সচেতন হয়ে চলাফেরার আহ্বান জানান তারা।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত হেলথ বুলেটিনের সর্বশেষ (২২ মে ২০২০) তথ্য অনুযায়ী, দেশে মহামারি করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ২৪ জনের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে। এ নিয়ে ভাইরাসটিতে মোট ৪৩২  জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন আরও এক হাজার ৬৯৪ জন। এতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৩০ হাজার ২০৫ জনে।গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হ‌য়েছেন আরও ৫৮৮ জন। এ নি‌য়ে সুস্থ হ‌য়ে ওঠা রোগীর সংখ্যা দাঁড়াল ছয় হাজার ১৯০ জ‌নে। মারা যাওয়া ব্যক্তিদের সম্পর্কে জানানো হয়, হাসপাতালে মারা গেছেন ১৫ জন, বাড়িতে আটজন ও হাসপাতালে আনার পথে একজন। এদের মধ্যে ঢাকা বিভাগের ১৩ জন, চট্টগ্রাম বিভাগের ৯ জন, বরিশাল বিভাগে একজন ও ময়মনসিংহ বিভাগের তিনজন। তাদের বয়স বিশ্লেষণে ২১-৩০ বছরের মধ্যে পাঁচজন, ৩১-৪০ বছরের মধ্যে তিনজন, ৪১-৫০ দুইজন, ৫১-৬০ পাঁচজন, ৬১-৭০ ছয়জন, ৭১-৮০ দুইজন এবং ৮১-৯০ বছরের মধ্যে একজন।
আমাদের বাণী ডট কম/২৩ মে ২০২০/ভিপিএ

শেয়ার করুনঃ
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  ‘বেস্ট প্রিন্সিপাল অব দ্য ইয়ার’ হলেন মোহাম্মদপুর মডেল কলেজের অধ্যক্ষ